পানি নিয়ে কি ভাবছে বিশ্বের বড় কর্পোরেট প্রতিষ্ঠান গুলো ?

ওয়ার্ল্ড রিসোর্সেস ইন্সটিটিউটের এক জরিপে দেখা গেছে, পৃথিবীতে এক বিলিয়নের মানুষ বাস করছে তীব্র পানি সংকটে। ২০২৫ সাল নাগাদ এই সংখ্যা বেড়ে দাড়াতে পারে ৩.৫ বিলিয়নে। সেই সাথে আগামী ২০ বছরে পানির চাহিদা প্রায় ৪০% বাড়ার সম্ভাবনা।
পানির অপর নাম জীবন। কিন্তু সেই জীবনের উৎস যখন হুমকির মুখে তখন আমাদের সেই বিষয়ে ভাবতে হবে বৈকি। শুধু খাবারের জন্য পানির প্রয়োজন তা কিন্তু নয়। জনসংখ্যার ঊর্ধ্বগতি, যত্রতত্র পানি ব্যবহার, বিরূপ আবহাওয়া, খরা, দূষণ- বিভিন্ন কারণে নিরাপদ পানির অস্তিত্ব হুমকির মুখে। তাই জীবনের উৎস তথা নিরাপদ পানির সরবরাহ ঠিক রাখতে বিশ্বের বিভিন্ন বড় কর্পোরেট প্রতিষ্ঠান ইতিমধ্যে কিছু প্রশংসনীয় উদ্যোগ নিয়েছে।

• স্যাবমিলার নামে যুক্তরাজ্যভিত্তিক বিয়ার উৎপন্নকারী প্রতিষ্ঠানটি ২০১৫ সালের মধ্যে পানির ব্যবহার ২০% কমানোর উদ্যোগ নিয়েছে।
• আমেরিকার পোশাক উৎপাদনকারী প্রতিষ্ঠান লেভিস স্ট্রস একজোড়া জিন্সের প্যান্ট বানাতে ৯৬% পর্যন্ত কম পানি খরচ করছে। ৫ বছর আগে নেওয়া এ উদ্যোগে এখন পর্যন্ত এক বিলিয়ন লিটার পানি সংরক্ষণ করা সম্ভব হয়েছে।
• কনজুমার পণ্য উৎপাদনকারী ইউনিলিভার আর গাড়ি প্রস্ততকারক ভক্সওয়াগন আফ্রিকা আর দক্ষিণ আমেরিকায় পানি ধরে রাখতে বৃক্ষরোপণের উদ্যোগ নিয়েছে, আর এজন্য শত হাজার ডলারও খরচ করছে।
• কফির জনপ্রিয় প্রতিষ্ঠান স্টারবাকস ঘোষণা করেছে, মেক্সিকো আর ইন্দোনেশিয়ায় পানি মজুদের জন্য খরচ করবে মিলিয়ন ডলার।
• মাইক্রোসফট ইতোমধ্যে ক্যালিফোর্নিয়ার সাগরতলে ডাটা সেন্টার বসিয়েছে, যাতে শীতলীকরণের জন্য পানির খরচ কমানো সম্ভব হয়।

Facebook Comments
Share This Post
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

Add a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *